শনিবার, জুলাই ১৩, ২০২৪
spot_img

আশুলিয়ায় গনধর্ষণের ৩ আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব

মো.মাইনুল ইসলাম, সাভারঃ ঢাকা জেলার আশুলিয়ায় ভাইদেরকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে বোনকে গনধর্ষণের প্রধান তিন আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। মঙ্গলবার (৩০ মে) সন্ধায় র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন র‍্যাব-৪ আশুলিয়ার নবীনগর ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার লে. রাকিব মাহমুদ খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

র‍্যাবের অভিযানে গ্রেপ্তারকৃত আসামিরা হলেন- রানা সরকার (৩২), মো. রবিউল শেখ রবি (২৪) ও মো. রাব্বি (২৩)। র‍্যাব সাংবাদিকদের জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৪ এর একটি আভিযানিক দল আজ মঙ্গলবার সকালে আশুলিয়া থানাধীন নরসিংহপুর এলাকা থেকে জামগড়া এলাকার ভাইকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে বোনকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় ওই তিনজনকে গ্রেপ্তার করেন।

গ্রেপ্তারকৃত রানা সরকার ঢাকা জেলার বাসিন্দা, মো. রবিউল শেখ রবি (২৪) পাবনা ও মো. রাব্বি (২৩) গাজীপুর জেলার বাসিন্দা। আসামি রানা মূলত ওই এলাকার কিশোর গ্যাং লিডার এবং তার বিরুদ্ধে পাঁচটি মামলা রয়েছে। এছাড়াও অন্য আসামিদের বিরুদ্ধেও একাধিক মামলা রয়েছে।

গত শনিবার (২৭ মে) রাতে পাওনা টাকার জন্য প্রতিবেশী এক নারীর বাসায় আসেন আরেক প্রতিবেশী আকবর। একই সময় আসামিসহ অজ্ঞাতনামা আরও ৭/৮ জন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে আকবরের পিছনে পিছনে ভিকটিমের বাড়িতে আসে এবং আসামিরা সংঘবদ্ধ হয়ে আকবরকে মারধর করতে থাকে। এসময় ভিকটিম নারী ও তার ছোট দুই ভাইকে নিয়ে বাহিরে আসলে আসামিরা প্রচন্ড ক্ষিপ্ত হয়। পরে ভিকটিম তার দুই ভাইকে নিয়ে পুনরায় বাসার ভেতরে প্রবেশ করেলে তৎক্ষণাৎ আসামিরাও দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে জোরপূর্বক ভিকটিমের বাসায় প্রবেশ করে এবং ভিকটিমের ভাইদের উপর্যুপুরি মারধর করে রুমের মধ্যে আটকে রাখে।

পরবর্তীতে ভিকটিমের দুই ভাইয়ের মাথায় অস্ত্র ঠেকিয়ে ভিকটিমকে জোরপূর্বক তার শয়ন কক্ষে নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে স্থানীয় লোকজন ভিকটিমের বাড়িতে এসে ভিকটিমকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করে। পরে ভিকটিম র‌্যাব-৪ বরাবর বর্ণিত ঘটনার ব্যাপারে একটি লিখিত অভিযোগ দাখিল করলে র‍্যাব-৪ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছায়াতদন্ত শুরু করে।

আরো দেখুন
Advertisment
বিজ্ঞাপন

সবচেয়ে জনপ্রিয়